You Are Here: Home » featured » ইসলামী আন্দোলনের সফর কর্মসূচি চলছে, ১৩ জেলায় কমিটি পুনঃগঠন

ইসলামী আন্দোলনের সফর কর্মসূচি চলছে, ১৩ জেলায় কমিটি পুনঃগঠন

ইসলামী আন্দোলনের সফর কর্মসূচি চলছে, ১৩ জেলায় কমিটি পুনঃগঠন

গুম, অপহরণ, হত্যা ও সন্ত্রাস বন্ধে ইসলামী শাসন ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা এবং দলীয় সাংগঠনিক কার্যক্রম জোরদার করার লক্ষ্যে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর পূর্ব ঘোষিত সফরসূচি অনুযায়ী বিভিন্ন জেলায় মজলিসে শুরার অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়েছে। দেশব্যাপী এ সফরের অংশ হিসেবে মজলিসে শুরার মাধ্যমে গত ৭ দিনে নোয়াখালী, ফেনী, কুমিল্লা পশ্চিম, নারায়ণগঞ্জ, ঢাকা জেলায় পৃথক পৃথক কমিটি গঠন করা হয়েছে। এ সকল জেলার মজলিসে শুরার অধিবেশন সমূহে প্রধান অতিথি ছিলেন সংগঠনের মহাসচিব অধ্যক্ষ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় নেতা মাওলানা মোহাম্মদ নেছার উদ্দিন। এ সকল জেলাগুলোর মজলিসে শুরার অধিবেশনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি ইসলামী শিক্ষানীতি সংকোচনের খবরে গভীর উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, বিরানব্বই ভাগ মুসলমানের দেশে ইসলামী শিক্ষা নিয়ে চক্রান্ত কোনোভাবেই মেনে নেয়া হবে না।

নোয়াখালী জেলার শুরার অধিবেশন শহরের মাইজদীস্থ মিলনায়তনে হাফেজ মাওলানা নজির আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অধিবেশনে শুরা সদস্যবৃন্দ বক্তব্য রাখেন। শুরা অধিবেশন শেষে হাফেজ মাওলানা নজির আহমদকে সভাপতি ও মাওলানা কামাল উদ্দিনকে সেক্রেটারি করে নোয়াখালী জেলা কমিটি ঘোষণা করা হয়। ফেনী শহরের ডাক্তারপাড়াস্থ একটি মিলনায়তনে আল্লামা মুহাম্মদ হাবীবুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং মাওলানা এনামুল হক ভুঁইয়ার পরিচালনায় অনুষ্ঠিত অধিবেশন শেষে মাওলানা হাবীবুর রহমানকে সভাপতি ও মাওলানা নুরুল করীমকে সেক্রেটারি করে ফেনী জেলা কমিটি পুনঃগঠন করা হয়। কুমিল্লা পশ্চিম অধিবেশন তিতাসের বাতাকান্দি মাদরাসা মিলনায়তনে আলহাজ কাজী রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অধিবেশনে কাজী মু. রফিকুল ইসলামকে সভাপতি এবং মাওলানা তাজুল ইসলামকে সেক্রেটারি নির্বাচিত করা হয়। নারায়ণগঞ্জ জেলা শুরা অধিবেশন শহরের একটি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। অধিবেশন শেষে আলহাজ আতিকুর রহমান নান্নু মুন্সিকে সভাপতি ও মাওলানা শেখ সাদীকে সেক্রেটারি করে নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটি পুনঃগঠন করা হয়। এছাড়া ঢাকা জেলা মজলিসে শুরা অধিবেশন পুরানা পল্টনস্থ আইএবি মিলনায়তনে আলহাজ সৈয়দ আলী মোস্তফার সভাপতিত্বে এবং হাজী শাহাদাত হোসাইনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়। অধিবেশন শেষে আলহাজ সৈয়দ আলী মোস্তফাকে সভাপতি এবং হাজী শাহাদাত হোসাইনকে সেক্রেটারি করা হয়। খাগড়াছড়ি জেলা শুরার অধিবেশন শেষে হাফেজ মাওলানা আব্দুল কাদেরকে সভাপতি ও হাফেজ মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইনকে সেক্রেটারি করা হয়।

কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা মুহাম্মদ ইমতিয়াজ আলম কুড়িগ্রাম, সিরাজগঞ্জ, বগুড়া, গাইবান্ধা, রংপুর মহানগর, রংপুর জেলা, লালমনিরহাট জেলা সফর করেছেন। কুড়িগ্রাম জেলা মজলিসে শুরা অধিবেশন শেষে মাওলানা মুস্তাফিজুর রহমানকে সভাপতি ও মু. মুকসেদুর রহমানকে সেক্রেটারি, সিরাজগঞ্জ জেলা শুরার অধিবেশনে মুফতী মুহিব্বুল্লাহকে সভাপতি ও মুফতী আলআমিনকে সেক্রেটারি, বগুরা জেলা শুরার অধিবেশনে মুহাদ্দিস মাওলানা আব্দুল হক আজাদকে সভাপতি ও অধ্যাপক মাওলানা আ.ন.ম মামুনুর রশিদকে সেক্রেটারি, গাইবান্ধা জেলা শুরার অধিবেশন শেষে এম.এ. মোত্তালিব মন্ডলকে সভাপতি ও মোঃ আবদুল মাজেদকে সেক্রেটারি, রংপুর মহানগর শুরার অধিবেশন শেষে মাওলানা খায়রুল ইসলামকে সভাপতি ও আলহাজ আবদুর রহমান ফারুকীকে সেক্রেটারি, রংপুর জেলা শুরা অধিবেশন শেষে হাফেজ মাওলানা মোসলেম উদ্দিনকে সভাপতি ও মোঃ মাহমুদুর রশিদ রিপনকে সেক্রেটারি, লালমনিরহাট জেলা শুরা অধিবেশন শেষে বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ ইবরাহীম হোসেন খানকে সভাপতি ও মোঃ শফিউল্লাহকে সেক্রেটারি, টাঙ্গাইল জেলা মজলিসে শুরা অধিবেশন শেষে আলহাজ খন্দকার সানোয়ার হোসেনকে সভাপতি ও আলহাজ আকরাম হোসেনকে সেক্রেটারি নির্বাচিত করা হয়।

Comments

comments

About The Author

কপিরাইট © ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ২০১১ সকল স্বত্ব সংরক্ষিত

Scroll to top