You Are Here: Home » featured » মিয়ানমারে মুসলিম গণহত্যা বন্ধে ৮ সেপ্টেম্বর ইসলামী আন্দোলনের গণমিছিল এবং শীঘ্রই কঠোর কর্মসূচির ঘোষণা আসছে

মিয়ানমারে মুসলিম গণহত্যা বন্ধে ৮ সেপ্টেম্বর ইসলামী আন্দোলনের গণমিছিল এবং শীঘ্রই কঠোর কর্মসূচির ঘোষণা আসছে

মিয়ানমারে মুসলিম গণহত্যা বন্ধে ৮ সেপ্টেম্বর ইসলামী আন্দোলনের গণমিছিল এবং শীঘ্রই কঠোর কর্মসূচির ঘোষণা আসছে

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যক্ষ মাওলানা সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল-মাদানী মিয়ানমারে মুসলিম গণহত্যা বন্ধে বিশ্বমুসলিমকে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, মিয়ানমার সরকার রোহিঙ্গাদের উপর নির্যাতনের স্টিমরোলার বন্ধ না করলে প্রয়োজনে লংমার্চসহ আরো কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য হব। মিয়ানমারে সেনাবাহিনী-পুলিশ ও রাখাইন বৌদ্ধদের দ্বারা বর্বরোচিত রোহিঙ্গা মুসলিম গণহত্যা, ধর্ষণ, বাড়ী-ঘরে অগ্নিসংযোগ ও নির্যাতন চালিয়ে বার বার মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে। সংখ্যালঘু রোহিঙ্গা মুসলমানদের সকল প্রকার নাগরিক ও মানবিক অধিকার হরণ করা হয়েছে। তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক আদালতে রোহিঙ্গা মুসলমানদের গণহত্যা ও ধর্ষণের বিচার এবং মিয়ানমারের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্যে মানবিক বিপর্যয় রোধ এবং শান্তি প্রতিষ্ঠায় জাতিসংঘ শান্তিরক্ষী বাহিনী মোতায়েন করতে হবে।

সোমবার (২৮ আগস্ট) বিকেলে পুরানা পল্টনস্থ আইএবি মিলনায়তনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর মজলিসে আমেলার এক সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

মহাসচিব অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ-এর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক হাফেজ মাওলানা এটিএম হেমায়েত উদ্দিন, দক্ষিণ সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রকৌশলী আশরাফুল আলম, যুবনেতা কেএম আতিকুর রহমান, প্রচার সম্পাদক মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম, মাওলানা নেছার উদ্দিন, আলহাজ্ব হারুন অর রশিদ, মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইন সাকী, এডভোকেট লুৎফুর রহমান শেখ প্রমুখ।

মাওলানা মাদানী বলেন, মিয়ানমার সেনাবাহিনী কর্তৃক রোহিঙ্গা মুসলমানদের গণহত্যা, ধর্ষণ এবং তাদের ঘর-বাড়ি জ্বালিয়ে দেয়ার ঘটনার পর জাতিসংঘসহ সারা বিশ্বের বিবেকবান মানুষ তার প্রতিবাদ করলেও মায়ানমার সরকার তাতে কর্ণপাত করছে না। বাংলাদেশ সরকারের বাধা প্রদান সত্ত্বেও এখনো বাংলাদেশে রোহিঙ্গা মুসলমানরা প্রবেশ দেশে ফিরিয়ে নিয়ে তাদের পুনর্বাসনের জন্য জাতিসংঘ এবং ওআইসি মায়ানমার সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে। কিন্তু মায়ানমার সরকার তা উপেক্ষা করে আবারও গণহত্যা শুরু করেছে। গত ৫০ বছরে মায়ানমার সরকার সে দেশ থেকে প্রায় ১২ লক্ষ মুসলমানকে বিতাড়িত করেছে। বিশ্বব্যাপী অং সান সু চিকে বয়কট করতে হবে।

সভায় ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৭ মিয়ানমারে মুসলিম হত্যার প্রতিবাদে বিশাল গণমিছিল করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।

এদিকে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর সহযোগী সংগঠন ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন মিয়ানমারে অব্যাহত মুসলিম গণহত্যার প্রতিবাদে আগামী ৩০ আগস্ট’১৭ বুধবার বিকাল ৩টায় বায়তুল মোকাররম উত্তর গেইট থেকে বিক্ষোভ মিছিল করবে।

Comments

comments

About The Author

Number of Entries : 673